ঢাকা, ২ অক্টোবর : বাংলাদেশের সিনিয়র বিনোদন সাংবাদিক আওলাদ হোসেন আর নেই। বৃহস্পতিবার রাত ৩টার দিকে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে রাজধানীর ল্যাবএইড হাসপাতালে মারা যান তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫০ বছর।

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় স্ট্রোক করলে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। সেখানেই তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত আওলাদ হোসেন দৈনিক মানবজমিনের সিনিয়র রিপোর্টার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। এছাড়া জীবনের শেষদিন পর্যন্ত ফিল্ম জার্নালিস্ট ফাউন্ডেশন অব বাংলাদেশ এর সভাপতি পদে দায়িত্ব পালন করেন তিনি।

পারিবারিক জীবনে আওলাদ হোসেন স্ত্রীসহ শাহবাজ হোসেন মুন ও অপরাজিতা হোসেন মীম নামে দুই সন্তান রেখে গেছেন। ছেলে ও মেয়ে দুজনেই বর্তমানে বাংলাদেশ মেডিক্যাল কলেজে ডাক্তারি পড়ছেন।

বাংলাদেশের চলচ্চিত্র সাংবাদিকতায় আওলাদ হোসেন সর্বজন শ্রদ্ধেয়। তার মৃত্যুতে চলচ্চিত্র অঙ্গনে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

চিত্রনায়ক ওমর সানী বলেন, আমার আর মৌসুমীর খুবই কাছের মানুষ ছিলেন। নানাভাবে আমাদের পরামর্শ দিতেন। আমাদের পরিবারের এই পরম বন্ধুকে হারিয়ে আমরা শোকগ্রস্ত। সবার কাছে অনুরোধ থাকবো তার জন্য দোয়া করবেন।

উল্লেখ্য, প্রবীণ এই সাংবাদিক ১৯৮৭ সালে দৈনিক খবরের ম্যাগাজিন ‘সাপ্তাহিক ছায়াছন্দ’তে সহ-সম্পাদক পদে যোগদানের মধ্য দিয়ে সাংবাদিকতা শুরু করেন। দীর্ঘ ১৫ বছরের কর্মজীবন ছেড়ে ২০০৪ সাল থেকে বর্তমান অবধি দৈনিক মানবজমিন পত্রিকায় সিনিয়র রিপোর্টার হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

এর পাশাপাশি তিনি দৈনিক ইনকিলাব, দৈনিক দিনকাল, দৈনিক যুগান্তর, সাপ্তাহিক চিত্রবাংলা, সাপ্তাহিক মনোরমা, সাপ্তাহিক বর্তমান দিনকাল, সাপ্তাহিক চিত্রালী, পাক্ষিক প্রিয়জন, পাক্ষিক বিনোদন বিচিত্রা, চ্যানেল আইয়ের পাক্ষিক আনন্দ আলো, পাক্ষিক আনন্দ ভুবন পত্রিকায় নিয়মিত আমন্ত্রিত লেখক হিসেবে চলচ্চিত্র ও সংস্কৃতি বিষয়ক কলাম ও প্রতিবেদন লিখেন।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *