রাজশাহী, ১৭ সেপ্টেম্বর : বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও রাজশাহী জেলা বিএনপির সভাপতি মিজানুর রহমান মিনু সবকটি মামলায় জামিন পেয়েছেন। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) থাকা মিনুর পাহারায় থাকা পুলিশ ৮ বুধবার রাত সোয়া ৮টার দিকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

মিজানুর রহমান মিনুর নামে নাশকতার সাতটি মামলা রয়েছে। একটি মামলায় উচ্চ আদালত থেকে জামিন নিয়ে গত ১৩ জুলাই তিনি নিম্ন আদালতে হাজিরা দিতে গিয়েছিলেন। আদালত তখন জামিন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। সেই থেকে তিনি রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে ছিলেন।

গত ৯ সেপ্টেম্বর দাঁতের চিকিৎসার জন্য তাকে রাজশাহীর সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। চিকিৎসা চলাকালে তিনি অসুস্থবোধ করলে তাকে ওইদিন দুপুর ১২টার দিকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। পরের দিন তাঁকে হাসপাতালের সিসিইউতে স্থানান্তর করা হয়। সেখানেই তিনি পুলিশ পাহারায় চিকিৎসাধীন ছিলেন। সে সময় চিকিৎসকেরা বলেছিলেন তার একটা ছোট্ট হার্ট অ্যাটাক হয়েছিল।

রাতে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারের জ্যেষ্ঠ তত্ত্বাবধায়ক শফিকুল ইসলাম বলেন, আগেই তাঁর ছয়টি মামলায় জামিন হয়েছিল। একটি বাকি ছিল। আজ সে মামলায় উচ্চ আদালত থেকে তিনি জামিন পান। কাগজপত্র প্রস্তুত করতে সন্ধ্যা পার হয়ে যায়। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, রাত সোয়া আটটার দিকে পুলিশ সরিয়ে নেওয়া হয়।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *