স্পোর্টস ডেস্ক, ৪ অক্টোবর : বিশ্বকাপ ক্রিকেটের ফাইনালে আইসিসির চেয়ারম্যান হিসেবে অযাচিতভাবে নিজের ক্ষমতার প্রয়োগ ঘটিয়েছিলেন নারায়ণস্বামী শ্রীনিবাসন। কেবল ব্যক্তিগত আক্রোশ চরিতার্থ করতেই কূটচাল চেলে আইসিসির সভাপতি আ হ ম মুস্তফা কামালকে ট্রফি বিতরণ করতে দেননি তিনি। মেলবোর্ন ক্রিকেট মাঠের দুয়ো ধ্বনি উঠলেও ব্যাপারটা নিয়ে তখন কারোর কিছুই করার ছিল না।

কিন্তু মাত্র ছয় মাসের ব্যবধানে মুদ্রার অন্যপিঠ দেখছেন এই বিতর্কিত ক্রিকেট সংগঠক। তার সাধের আইসিসি চেয়ারম্যান পদই পড়ে গেছে হুমকির মুখে। ভারতীয় ইংরেজি দৈনিক টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে, অচিরেই তাঁকে আইসিসির চেয়ারম্যান পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হতে পারে।

আইসিসির চেয়ারম্যান কিংবা সভাপতি যে পদই হোক না কেন, এসব পদের প্রার্থিতা চূড়ান্ত করে সাধারণত সংশ্লিষ্ট ক্রিকেট বোর্ডগুলো। ভারতীয় ক্রিকেট বোডের্র (বিসিসিআই) সমর্থন নিয়ে আইসিসির চেয়ারম্যান হয়েছিলেন শ্রীনিবাসন। এই মুহূর্তে ভারতীয় বোর্ডে অবস্থান টালমাটাল হওয়ায় আইসিসিতে তাঁর ক্ষমতাশালী পদটিও তাই পড়ে গেছে হুমকির মুখেই।

টাইমস অব ইন্ডিয়া জানিয়েছে ভারতীয় বোর্ডের পরবর্তী বার্ষিক সাধারণ সভাতেই শ্রীনিকে আইসিসি থেকে বের করে দেওয়ার প্রস্তাব উঠতে পারে।

বিসিসিআইয়ের পরবর্তী বার্ষিক সাধারণ সভাটি অনুষ্ঠিত হচ্ছে বোর্ড প্রধান জগমোহন ডালমিয়ার আকস্মিক মৃত্যু পরবর্তী উদ্ভূত পরিস্থিতিতে। সে সভাতেই বোডের্র পরবর্তী প্রধান হিসেবে শশাঙ্ক মনোহরের মনোনয়ন প্রায় চূড়ান্তই হয়ে আছে। মনোহর বিসিসিআই সভাপতি হয়ে গেলেই শ্রীনিবাসনকে খুব সম্ভবত আইসিসির চেয়ারম্যান-পদ ছেড়েই দিতে হবে।

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *