Search
Saturday 23 March 2019
  • :
  • :

মেজাজ খিটখিটে হলে চুমু খান

মেজাজ খিটখিটে হলে চুমু খান

ডেইলি রিপোর্ট ডেস্ক : এক সময় মন খারাপ হয়, কিছুই ভালো লাগে না। কী করবেন? সকাল সকাল এত কাজের মাঝেও আপনার মন ভালো করার জন্য রইলো এমন কিছু টিপস, যেগুলো আপনি জানেন না।

সকালের খাদ্য তালিকায় রাখুন অবশ্যই একটি কলা। এছাড়াও দারুচিনির ফ্লেভার দেয়া জ্যাম রাখতে পারেন, পান করতে পারেন দারুচিনি ফ্লেভার দেয়া চা, রুটির ওপরে অল্প দারুচিনি গুঁড়োও ছড়িয়ে দিতে পারেন। এই কলা ও দারুচিনি কোন রকম প্রয়াস ছাড়াই আপনার মুড ভালো করতে ও ভালো রাখতে দারুণ কার্যকর।

ঘুম থেকে উঠেই লাফ দিয়ে কাজে লেগে যাবেন না। হ্যাঁ, আপনার হাতে সময় কম। কিন্তু লাফ দিয়ে কাজে লেগে গেলে লাভ কিছুই হবে না, উল্টো মেজাজ আরও খারাপ হবে। গরমের দিনে চেষ্টা করুন একটি শাওয়ার নিয়ে ফেলতে, আপনাকে চাঙা করতে ভীষণ কার্যকর এটা। শীতের দিনেও উষ্ণ পানি দিয়ে ভালো করে হাতমুখ ধুয়ে নিন।

জানালার ধারে রাখতে পারেন পুদিনার গাছ। বা সকাল সকাল পান করতে পারেন পুদিনা ফ্লেভারের চা। মন চাঙা করতে খুব সহায়ক।

দুটি মিনিট সময় দিন নিজেকে। এমন কোথাও দাঁড়িয়ে থাকুন, হয়তো আপনার জানালা কিংবা বারান্দার যেখানে পর্যাপ্ত সূর্যের আলো এসে। সূর্যের আলো শরীরে মাখতে দিন। এই ফাঁকে ভেবে নিন সারাদিনের কাজের ব্যাপারে। বাইরের দিকে দেখুন, সম্ভব হলে আকাশে তাকান। দেখবেন, মনটা অন্যরকম হয়ে যাচ্ছে। সারাদিনের কাজের কথা ভাবলেও আর খারাপ লাগছে না।

নাস্তা করুন এমন কিছু দিয়ে যা আপনার পছন্দের। শুধু সকালে কেন, পছন্দের খাবার যে কোন সময়েই মন প্রফুল্ল রাখে।

কাজ করুন গান শুনতে শুনতে, সকাল বেলা এর চাইতে কার্যকরী আর কিছুই হতে পারে না। শুনতে ইচ্ছা না করলেও মৃদু শব্দে গান ছেড়ে দিন, তারপর সেরে নিন নিজের দৈনন্দিন সকল কাজ। দেখবেন মনটা প্রফুল্ল হয়ে উঠেছে।

সকাল ব্যায়াম করার অভ্যাস গড়ে তুলুন, নিদেন পক্ষে প্রিয়জনের হাত ধরে পাশাপাশি হাঁটুন কিছু সময়। প্রিয় মানুষটিকে জড়িয়ে ধরুন, চুমু খান। যাদের এমন কোন প্রিয়জন নেই কাছে, তাঁরা নিজের প্রিয় কিছুকে ১ টা মিনিট সময় দিন প্রতিদিন সকালে। সেটা হতে পারে নিজের বাগান থেকে শুরু করে প্রিয় পোশাকসহ যে কোন কিছুই।