Search
Thursday 17 January 2019
  • :
  • :

বাংলাদেশে নারী-প্রধান পরিবারের সংখ্যা বাড়ছে

বাংলাদেশে নারী-প্রধান পরিবারের সংখ্যা বাড়ছে

ঢাকা, ২৯ জুন : বাংলাদেশের পরিবারগুলো প্রধানত পুরুষ-প্রধান হলেও যেসব পরিবারে কর্ত্রী হিসেবে নারী রয়েছেন তাদের সংখ্যা ইদানীং বাড়ছে বলে সরকারি তথ্যে জানা যাচ্ছে।

আর এসব নারীর বেশিরভাগই হয় বিধবা, নয়তো তার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে।

বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর জরিপ অনুযায়ী, প্রতি ১০০টি পরিবারের মধ্যে ১৪টি পরিবারের প্রধান এখন নারী। দুহাজার তের সাল থেকে এই হার বাড়ছে বলে পরিসংখ্যানে জানা যাচ্ছে। দশ বছর আগে নারী-প্রধান পরিবারের হার ছিল ১০.৩%।

জরিপের ফলাফল থেকে আরও জানা যাচ্ছে যে অল্প বয়সী মেয়েরাই এখন পরিবারের হাল ধরছেন। বয়স ১৫ বছরের কম এমন নারী এখন ২১.৬% পরিবারের কর্ত্রী। অন্যদিকে, ১৫ থেকে ৬০-এর মধ্যে বয়স এমন নারী এখন ১৩.৪% পরিবারের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

পরিসংখ্যান ব্যুরোর বিশ্লেষণ অনুযায়ী, ৮৪.৮% পরিবারের প্রধান যে নারী তিনি হয় বিধবা, নয়তো স্বামীর সাথে বিচ্ছেদ হয়েছে।

অন্যদিকে, শতকরা ১৪ ভাগ পরিবারের প্রধান অবিবাহিত নারী।

যেসব নারী পরিবারের হাল ধরেছেন তাদের সংখ্যা সবচেয়ে বেশি চট্টগ্রাম বিভাগে (২১.৫%)। তারপরেই রয়েছে সিলেট বিভাগ। কিন্তু এই দুটি বিভাগে কেন নারী-প্রধান পরিবারের সংখ্যা বেশি, সে সম্পর্কে বিশদ ব্যাখ্যা করা হয়নি। অন্যদিকে, এই ধরনের পরিবারের সংখ্যা সবচেয়ে কম রংপুর বিভাগে। অর্থাৎ সেখানে পুরুষরাই পরিবারের হাল ধরেছেন বেশি। বিবিসি বাংলা।