Search
Wednesday 18 May 2022
  • :
  • :

পেঁয়াজে মিলবে ক্যানসারসহ প্রাণঘাতী রোগমুক্তি

পেঁয়াজে মিলবে ক্যানসারসহ প্রাণঘাতী রোগমুক্তি

স্বাস্থ্য ডেস্ক : বেশির ভাগ মানুষ লাল পেঁয়াজ খেতে খুব একটা পছন্দ করে না। এটা খেলে মুখে বিশ্রি গন্ধ হওয়ায় অনেকে এর ধারের কাছেও যায় না। তবে এটা সত্যি, অনেকের আবার খাবার টেবিলে লাল পেঁয়াজ থাকা চায়-ই চায়।

স্বাস্থ্য সুরক্ষায় পেঁয়াজ যে দারুণ উপকারী এ সম্পর্কে হয়তোবা তারাও অবগত নন। ক্যানসার তৈরির কোষ বৃদ্ধি রোধসহ সাতটি প্রাণঘাতী রোগ প্রতিরোধ করে রান্না কাজে বহুল ব্যবহৃত এ লাল পেঁয়াজ।

তবে লাল পেঁয়াজ সব সময় কাঁচা খেতে হবে। কারণ তাপ এবং রান্নার প্রক্রিয়ায় লাল পেঁয়াজের গুণাবলী সব নষ্ট হয়ে যায়। সবচেয়ে ভালো হয়- আপনার পছন্দের খাবারের সঙ্গে লাল পেঁয়াজ সরাসরি কিংবা আলাদা খাদ্য তালিকা হিসেবে এটা খেতে পারেন। রোগ নিরাময়ে দারুণ কাজে দেবে।

আসুন জেনে নিই যেভাবে সাতটি রোগকে প্রতিরোধ করবে লাল পেঁয়াজ

১. ক্যানসার কোষের বৃদ্ধি ব্যাহত করে: পেঁয়াজে প্রচুর পরিমাণে সালফার রয়েছে। যা আপনার শরীরের আলসার ও বিভিন্ন ধরণের ক্যানসার কোষ বৃদ্ধি প্রতিরোধ করে আপনাকে সুরক্ষা দেবে। এছাড়া মূত্র ব্যবস্থায় আক্রমণ করে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে এরা।

২. ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করে: কাঁচা পেয়াজ ইনসুলিন তৈরির সহায়ক। তাই আপনার যদি ডায়াবেটিস প্রতিরোধ করতে চান, তাহলে বেশি করে পেঁয়াজ খান।

৩. কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে: কাঁচা পেঁয়াজে প্রচুর পরিমাণে আঁশ রয়েছে। তাই কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা সমাধানে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এ আঁশ শরীরের অন্ত্র থেকে বিষাক্ত পদার্থ বের করে দেয়।

৪. গলাব্যথা ভালো করে: পেঁয়াজের রস ঠাণ্ডা ও গলব্যাথার ক্ষেত্রে একটি চমৎকারী পথ্য হিসেবে কাজ করে। বিস্ময়করভাবে এ সব রোগের দারুণ ফল দেয়।

৫. নাক দিয়ে রক্তপাত বন্ধ করে: নাক দিয়ে রক্ত পড়া রোগের উত্তম সমাধান দেবে পেঁয়াজ। আপনার এ রোগ থাকলে একটি পেঁয়াজ অর্ধেক করে কেটে সেটির ঘ্রাণ নিন, দেখবেন এতে ভালো ফল পাবেন।

৬. হৃৎপিণ্ড ভালো রাখে: পেঁয়াজ হৃদরোগের বিরুদ্ধে লড়াই করে এবং উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে হৃৎপিণ্ড ভালো রাখে।

৭. কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণ করে: কাঁচা পেঁয়াজ কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে এবং স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর কোলেস্টেরল এলডিএল হ্রাস করে। তথ্যসূত্র : হেলথ অ্যান্ড হেলথি লিভিনিং।




Leave a Reply

Your email address will not be published.