স্পোর্টস ডেস্ক, ৩০ সেপ্টেম্বর : মাঠে রেফারির দিকে তেড়ে যাচ্ছেন ফুটবলাররা এই দৃশ্য হর হামেশাই দেখা যায়। জবাবে রেফারির পকেট থেকে কার্ড বের করাও চেনা দৃশ্য। কিন্তু ব্রাজিল ফুটবলে ঘটে গেল এক লোমহর্ষক ঘটনা। ঘটনাটি নজিরবিহীন। ব্রাজিলে একটি অপেশাদার লিগের ম্যাচে মারপিট থামাতে লাল কিংবা হলুদকার্ড নয়, সোজা বন্দুক বের করলেন রেফারি।

ওই খেলায় কোনও একটা সিদ্ধান্ত পছন্দ না হওয়ায় রেফারির দিকে তেড়ে যান একদল ফুটবলার। একটি দলের ফুটবলার আর ম্যানেজার রেফারিকে হেনস্থা আর মারধর করেন বলে অভিযোগ। রেফারির সিদ্ধান্তে উত্তেজিত হয়ে এক ফুটবলার লাথি ও ঘুষি মারেন রেফারি গ্যাব্রিয়েলকে। এরপরই লালকার্ড নয়, একেবারে বন্দুক বের করলেন গ্যাব্রিয়েল।

রেফারির হাতে আগ্নেয়াস্ত্র দেখে বিক্ষুব্ধ খেলোয়াড়রা ভয়ে আর আশপাশে নেই। মাঠ ফাঁকা। দৌড়াদৌড়ি শুরু করে দেন ফুটবলাররা। আসলে ম্যাচের রেফারি পেশায় একজন পুলিশ। কিন্তু তাই বলে ফুটবলারদের বন্দুক উচিয়ে ধমকাবেন এটা কেউ ভাবতেই পারেননি। শেষপর্যন্ত রেফারিকে শান্ত করে পরিস্থিতি সামাল দেন লাইন্সম্যান। বন্দুক বের করা সেই রেফারির নাম গ্যাব্রিয়েল মুর্তা।

লাইন্সম্যান এসে পরিস্থিতি সামলে না দিলে হয়তো রেফারি গুলি চালিয়েই বসতেন। অপেশাদার ম্যাচ ব্রুম্যাডইনহো বনাম অ্যামানতেস দি বোলার বিরুদ্ধে ম্যাচে ঘটল এই ঘটনা। সূত্র : জি-নিউজ

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *