Search
Sunday 22 May 2022
  • :
  • :

পাকিস্তানের ভারত বয়কট শুরু!

পাকিস্তানের ভারত বয়কট শুরু!

স্পোর্টস ডেস্ক : আগামী জানুয়ারি মাসে ভারতে অনুষ্ঠিতব্য ব্লাইন্ড এশিয়া কাপ থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। নিজ খেলোয়াড়দের নিরাপত্তা বিষয়ে পাকিস্তানীরা শংকিত বলে জানা গেছে। এর মাধ্যমে পাকিস্তানের ভারত বর্জন শুরু হলো কিনা সে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।

গত সোমবার মুম্বাইয়ে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) অফিসে শিব সেনা সদস্যদের হামলা এবং দুই দেশের বোর্ড কর্মকর্তাদের বৈঠক ভন্ডুল হওয়ার পর পাকিস্তান ইতোমধ্যেই নিরাপত্তা নিয়ে শংকা প্রকাশ করেছে।

পাকিস্তান ব্লাউন্ড ক্রিকেট কাউন্সিল চেয়ারম্যান ও ওয়ার্ল্ড ব্লাউন্ড ক্রিকেট কাউন্সিলের সভাপতি নয়াদিল্লী টেলিভিশনকে (এনডিটিভি) বলেন, পাকিস্তান ও সীমান্তের ওপারে পাকিস্তানীদের প্রতি বর্তমান সেন্টিমেন্টের কারণেই আগামী জানুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিতব্য টুর্নামেন্ট থেকে নাম প্রত্যাহারের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। তিনি আরো বলেন, কর্তৃপক্ষের উচিত তাদের নিরাপদ ও নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিশ্চিত করা।

ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে ক্রিকেটীয় সম্পর্ক সবচেয়ে খারাপ অবস্থায় পৌঁছেছে। পার্শ্ববর্তী দেশ দুটির মধ্যে রাজনৈতিক সম্পর্ক জটিল হয়ে যাওয়ায় বিসিসিআই ম্যাচের বিষয়ে কোন নিশ্চয়তা দিতে না পারায় ডিসেম্বরে প্রস্তাবিত সিরিজ এক প্রকার বাতিল হয়েই গেছে।

ডিসেম্বরে প্রস্তাবিত সিরিজের বিষয়ে বিসিসিআই কর্মকর্তারা সোমবার কোনো সিদ্ধান্ত না দিতে পারার পর নয়াদিল্লীতে মঙ্গলবার নিজের হতাশা প্রকাশ করেছেন পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) চেয়ারম্যান শাহরিয়ার খান।

এমনকি ভবিষ্যতে ভারতের বিপক্ষে কোনো দ্বিপাক্ষিক সিরিজ না খেলার মত কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারে পাকিস্তান। এমনকি আগামী বছর ভারতে অনুষ্ঠিতব্য টি-২০ বিশ্বকাপও তারা বর্জন করতে পারে।

সর্বশেষ অবস্থা নিয়ে শংকা প্রকাশ করেছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলও (আইসিসি)। মুম্বাইতে শিব সেনার হামালার পর আগামীকাল ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যকার চতুর্থ ওয়ানডে ম্যাচ পরিচালনার জন্য নির্ধারিত নিরপেক্ষ আম্পায়ার পাকিস্তানী আলিমদারকে প্রত্যাহার করেছে আইসিসি। সিরিজ সমপ্রচার কর্তৃপক্ষ ষ্টার স্পোর্টস তাদের পাকিস্তানী ধারাভাষ্যকার ওয়াসিম আকরাম ও শোয়েব আখতারকেও প্রত্যাহার করেছে।




Leave a Reply

Your email address will not be published.