Search
Monday 21 September 2020
  • :
  • :

এখনো ‘সংকটাপন্ন’ বারী সিদ্দিকী

এখনো ‘সংকটাপন্ন’ বারী সিদ্দিকী

ঢাকা, ২০ নভেম্বর : রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) খ্যাতিমান সঙ্গীতশিল্পী ও বাঁশিবাদক বারী সিদ্দিকীর অবস্থা সংকটাপন্ন।

শুক্রবার (১৭ নভেম্বর) রাত থেকে রোববার (১৯ নভেম্বর) সন্ধ্যা পর্যন্ত তিনি কোনো সাড়া দেননি বলে জানিয়েছেন তার স্বজনরা।

সন্ধ্যায় বারী সিদ্দিকীর ছেলে সাব্বির সিদ্দিকী সাংবাদিকদের বলেন, ‘এখন পর্যন্ত কোনো সাড়া দিচ্ছেন না তিনি। গত শুক্রবার রাত ১টা থেকে আজ সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত উনি আইসিইউতেই (নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র) আছেন। এখন পর্যন্ত তিনি সাড়া দিচ্ছেন না। চিকিৎসকরা বলছেন, আশা খুবই কম।’

দীর্ঘদিন ধরে জনপ্রিয় এই শিল্পীর দুটি কিডনিই বিকল অবস্থায় ছিল। শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে শুক্রবার তাকে স্কয়ার হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়।

সুর ও সঙ্গীতায়োজনের নান্দনিক ও বৈচিত্র্যময় উপস্থাপনে পরিচিত বারী সিদ্দিকী। যিনি একাধারে সঙ্গীতশিল্পী, গীতিকার ও বাঁশিবাদক।

মাত্র ১২ বছর বয়সে নেত্রকোনার শিল্পী ওস্তাদ গোপাল দত্তের অধীনে সঙ্গীতে আনুষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ শুরু বারী সিদ্দিকীর। একসময় তার পরামর্শেই ধ্রুপদী সঙ্গীতের ওপর পড়াশোনা শুরু করেন তিনি। সত্তরের দশকে যুক্ত হন জেলা শিল্পকলা একাডেমির সঙ্গে। ওস্তাদ আমিনুর রহমানের কাছে প্রশিক্ষণ নেন পরবর্তী ছয় বছর। দবির খান,পান্নালাল ঘোষসহ অসংখ্য গুণী শিল্পীর সান্নিধ্য লাভ করেন তিনি।

বাঁশির প্রতি আগ্রহী হয়ে বারী সিদ্দিকী এর ওপর প্রশিক্ষণ নেন। নব্বইয়ের দশকে ভারতের পুনেতে গিয়ে পণ্ডিত ভিজি কার্নাডের কাছে তালিম নেন তিনি।